একসঙ্গে দুই নারীকে বিয়ে করছেন রোনালদিনহো!

স্পোর্টস লাইফ, ডেস্কএকসঙ্গে দুই নারীকে বিয়ে এখনকার যুগে প্রায় বিরল। তবে আফ্রিকা বা মধ্যপ্রাচ্যে এমন ঘটনা অহরহ ঘটছে। তা নিয়ে কারও উৎসাহ জাগে না। কিন্তু একই ঘটনা যদি ব্রাজিলের বিশ্বকাপজয়ী দলের সদস্য রোনালদিনহোর মতো তারকার ক্ষেত্রে ঘটে, তাহলে সেটা চমক জাগানিয়া খবর তো বটেই! ব্রাজিলের সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, একইসাথে নিজের দুই প্রেমিকাকে বিয়ে করতে চলেছেন রোনালদিনহো।

গত বছরের ডিসেম্বর থেকেই একইসাথে দুই প্রেমিকাকে নিয়ে একই ছাদের নিচে বাস করছেন সাম্বার ছন্দে ফুটবলবিশ্ব মাতানো সাবেক বার্সা তারকা রোনালদিনহো। ব্রাজিলের সবচেয়ে বড় শহর রিও ডি জেনেরিওতে ৫ মিলিয়ন পাউন্ড মূল্যমানের নিজের প্রাসাদোপম বাড়িতেই দুই প্রেমিকাকে নিয়ে রোনালদিনহোর সংসার। তবে এতোদিন লিভ টুগেদার করলেও সম্পর্ককে পরিনতি দিতে চান এই ব্রাজিলিয়ান তারকা।

ব্রাজিলের সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী,  প্রিসিলা কোয়েলহো ও বেয়াত্রিজ সাউজা নামের নিজের দুই প্রেমিকাকে আগামী আগস্টেই বিয়ে করতে চলেছেন ব্রাজিলিয়ান কিংবদন্তী ফুটবলার রোনালদিনহো। ২০১৬ সাল থেকে বেয়াত্রিজের সাথে প্রেম করছেন রোনালদিনহো। আর প্রিসিলা তার আরও আগের প্রেমিকা।

দুই প্রেমিকার জন্য দৈনিক খরচ হিসেবে ১৫০০ পাউন্ড বরাদ্দ করে রেখেছেন সাবেক বিশ্বসেরা ফুটবলার। সম্প্রতি বিদেশে বেড়াতে গিয়ে দুই প্রেমিকার জন্য একইরকম পারফিউম উপহার দেন তিনি। 

গত বছরের জানুয়ারিতে দুই প্রেমিকাকে একইরকম আংটি উপহার দিয়ে বিয়ের প্রস্তাব দেন রোনালদিনহো।সাবেক বর্ষসেরা ফুটবলারের দেয়া বিয়ের প্রস্তাবে সাথে সাথেই রাজি হয়ে গিয়েছিলেন দুই প্রেমিকা। আগামী আগস্টে তাদের বিয়ের পরিকল্পনার কথা প্রকাশ করেছেন ব্রাজিলের ‘ও ডিয়া’ পত্রিকার একজন জনপ্রিয় কলামিস্ট। 

তবে রোনালদিনহোর এমন অদ্ভুত সিদ্ধান্তে চটেছেন তার বোন ডেইজি। এরইমধ্যে বিয়ের অনুষ্ঠানে না যাওয়ার কথা জানিয়ে দিয়েছেন তিনি। 

এদিকে খেলোয়াড়ি জীবন ছেঁড়ে রাজনীতিতে নাম লেখাতে চলেছেন রোনালদিনহো। আরেক সাবেক তারকা ফুটবলার রোমারিওর সাথে ব্রাজিলিয়ান রিপাবলিকান পার্টি নামে মধ্য-ডানপন্থি একটি রাজনৈতিক দলে যোগ দিয়েছেন তিনি। পার্টির নির্বাচনী নাম্বার ১০। বার্সেলোনায় রোনালদিনহোর জার্সি নাম্বারও ছিল একই।

তবে রাজনৈতিক দলটির একাধিক নেতা রোনালদিনহোর 

এমন লাগামহীন জীবনযাপন নিয়ে আড়ালে সমালচনা করতেও ছাড়ছেন না। এমন চলতে থাকলে নির্বাচনী রাজনীতিতে তার টিকে থাকাই মুশকিল হয়ে যাবে বলে তাদের ধারণা।
Print Friendly, PDF & Email