বৃটেন থেকে বের করে দেওয়া হচ্ছে মো ফারাহর ভাইকে!

স্পোর্টস লাইফডেস্ক : মোহাম্মদ মুকতার জামা ফারাহ বললে চিনবেন হয়ত কেবল নামের শেষ অংশটা দেখে। কিন্তু মো ফারাহ বললে মুহূর্তে চিনে যাবেন। সোমালিয়ান বংশোদ্ভুত বৃটিশ দুরপাল্লার দৌড়বিদ তো এখন ইতিহাসের অংশ। অলিম্পিকে সবচেয়ে সফল বৃটিশও তিনি। কিন্তু তার ভাইকে কি না বৃটেন থেকে বের করে দেওয়া হচ্ছে! ২৫ বছর আগে সোমালিয়া ছেড়ে এসেছেন মো ফারাহ।

তাদের সবকিছু এখন ইংল্যান্ডেই। ৫.০০০ ও ১০,০০০ মিটার দৌড়ে রিও অলিম্পিকে ‘ডাবল’ সোনা জিতেছেন ৩৩ বছরের মো ফারাহ। তাতে ইতিহাসের দ্বিতীয় অলিম্পিয়ান হিসেবে এই দুই ইভেন্ট জিতে ‘ডাবল ডাবল’ এর গৌরব অর্জন করেছেন।

২০১২ লন্ডন অলিম্পিকেও জিতেছিলেন এই দুই ইভেন্টের সোনা। মো ফারাহ এখন যুক্তরাষ্ট্রেই থাকেন তার অনুশীলনের সুবিধার জন্য। কিন্তু পরিবার তো ইংল্যান্ডে। তার ২৭ বছরের ভাই আহমেদ ফারাহ একটি ছুরিকাঘাতের মামলায় মিথ্যে সাক্ষ্য দেওয়ার অপরাধ করেছিলেন। সাড়ে চার বছরের জেল হয়। একটু আগেভাগেই জেল থেকে বেরিয়েছেন। কিন্তু তাকে জানানো হয়েছে যে ইংল্যান্ড থেকে সোমালিয়ায় পাঠিয়ে দেওয়া হবে।

আইনি দীর্ঘসূত্রিতার জন্য বিষয়টা আটকে আছে। কিন্তু আহমেদ ভীত, “মো ও আমার জন্ম যেখানে সেখানে ফিরে যাওয়ার উপায় নেই। খুব বিপজ্জনক তা। আমার ভয়, আমি সেখানে হয়ত মরেই যাবো। আমার জন্য ওখানে কোনো আশা নেই। জীবন নিয়ে ভীত আমি। সোমালিয়ায় আমার কোনো শিকড় নেই। লোকে আমাকে মেরেই ফেলবে।

কারণ, আমি ভিন্ন। তারা আমাকে তাদের কেউ ভাববে না।” আহমেদের যখন এই অবস্থা তখন তার বড় ভাই জাতীয় বীর মো ফারাহকে বৃটেনে ‘নাইট’ উপাধি দেওয়ার দাবি উঠেছে।

Print Friendly, PDF & Email