রোনালদো-নেইমার দ্বৈরথ ঝড় তুলবে বার্নাব্যুতে

স্পোর্টস লাইফ, ডেস্ক : ফুটবলপ্রেমীদের চোখ এখন রিয়াল মাদ্রিদ-পিএসজি রোমাঞ্চে ভরপুর ম্যাচ ঘিরে। চ্যাম্পিয়নস লিগের নকআউট পর্বে মর্যাদার লড়াইয়ে নামছে দুই ইউরোপিয়ান পরাশক্তি। রোনালদোর রিয়াল বনাম নেইমারের পিএসজি। সান্তিয়াগো বার্নাব্যুতে প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ এক ম্যাচই উপভোগ করবেন দর্শকরা।

বুধবার (১৪ ফেব্রুয়ারি) বাংলাদেশ সময় দিবাগত রাত পৌনে ২টায় বহুল প্রতীক্ষিত ম্যাচটি শুরু হবে। প্যারিসে কোয়ার্টার ফাইনাল নির্ধারণী শেষ ষোলোর ফিরতি পর্বের চ্যালেঞ্জ ৬ মার্চ।

টানা তিনবার চ্যাম্পিয়নস লিগ জয়ের ইতিহাস গড়ার মিশনে রিয়াল। বিপরীতে তারকাসমৃদ্ধ ব্যয়বহুল পিএসজির ইউরোপিয়ান মুকুট জয়ের স্বপ্ন। কিন্তু এক দলকে বিদায় নিতে হবে শেষ ষোলো থেকে। তাই টিকে থাকার লক্ষ্যে নিজেদের সেরাটা উজাড় করে দিতে দৃঢ়প্রতিজ্ঞ দুই শিবিরই।

গত বছর নিজেদের ক্লাব ইতিহাসে রেকর্ড পাঁচটি শিরোপা জিতেছিল রিয়াল। নতুন মৌসুমে ছন্দ হারিয়েছে জিনেদিন জিদানের শিষ্যরা। লা লিগায় বার্সেলোনার চেয়ে পয়েন্টের ব্যবধানে (১৭) অনেকটাই ছিটকে গেছে তারা। বিদায় নিয়েছে কোপা দেল রের কোয়ার্টার ফাইনাল থেকেই।

ঘরোয়া প্রতিযোগিতার হতাশা মুছে ফেলতে গ্যালাকটিকোদের মূল ফোকাস চ্যাম্পিয়নস লিগের হ্যাটট্রিক শিরোপায়। সেই মিশনে শুরুতেই অতিক্রম করতে হবে নেইমার-কাভানি-এমবাপ্পে-ডি মারিয়াদের নিয়ে গড়া দুর্দান্ত পিএসজি বাধা।

একইভাবে রিয়ালকে হতাশায় ডুবিয়ে উল্লাসে ভাসতে চোখ রাখছে ফ্রেঞ্চ জায়ান্টরা। বায়ার্ন মিউনিখকে পেছনে ফেলে শীর্ষে থেকে সহজেই গ্রুপ পর্ব শেষ করেছে পিএসজি। সবচেয়ে বেশি গোলের রেকর্ডও ছিল তাদের দখলে। ৬ ম্যাচে ২৫টি!

এবার ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নদের থামিয়ে ইউরোপের অন্য প্রতিদ্বন্দ্বীদের কাছে একটা বার্তা প্রদর্শন করতে চায় উনাই এমেরির দল। টটেনহামের কাছে হার মেনে গ্রুপ পর্বে দ্বিতীয় স্থানে থেকে নকআউটের টিকিট পায় লস ব্লাঙ্কসরা।

মাদ্রিদে গিয়ে নিজেদের সেরাটা দেওয়ার বিকল্প নেই পিএসজির। অন্যদিকে ঘরের মাঠে সমর্থকদের সামনে মাথা উঁচু করেই থাকতে চাইবে ব্যাক-টু-ব্যাক চ্যাম্পিয়নস লিগ জয়ী রিয়াল। আকর্ষণের কেন্দ্রবিন্দুতে থাকবে রোনালদো-নেইমার দ্বৈরথ। যেটি ঝড় তুলবে বার্নাব্যুতে।

Print Friendly, PDF & Email
শেয়ার