পরিবার ভয়ে শঙ্কিত বলেই পাকিস্তান সফরে যাচ্ছেন না মুশফিক

স্পোর্টস লাইফ, ডেস্কপাকিস্তান সফরে মুশফিকুর রহিম যাবেন না এটা আগেই জানিয়েছিলেন। তবে শুধু টি-টোয়েন্টি সিরিজটি খেলতে যাচ্ছেন না এমনটাই জানা গিয়েছিল, কিন্তু এবার জানা গেল যে পুরো পাকিস্তান সফরেই যাবেন না। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মুশফিক নিজেই। এজন্য তিনি বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডকে (বিসিবি) চিঠিও দিয়েছেন এবং বিসিবি তা গ্রহণ করেছে। শুক্রবার (১৭ জানুয়ারি) বিপিএলের ফাইনাল শেষে সাংবাদিকদের মুশফিক একথা জানান।

মুশফিক বলেন, ‘আমি আগেই বলেছি পারিবারিক কারণে আমি পাকিস্তান সফরে যাচ্ছি না। তারা (পরিবার) ভয়ে শঙ্কিত। এই অবস্থায় আমি গিয়ে খেলতে পারি না। আমি বোর্ডকে আগেই অনুরোধ করেছি তারা মেনে নিয়েছেন। পাকিস্তান হয়ত আগের চেয়ে ভালো। কিন্তু দুই বছর যদি এমন যায় তাহলে হয়ত আত্মবিশ্বাস আমার কাছে আসবে (যাওয়ার জন্য)। এর আগেও পাকিস্তানে আমি ট্যুর করেছি। ২০০৮ সালে গিয়েছি। খেলার জন্য অনেক ভালো জায়গা।’

পাকিস্তান সফরটি তিনি মিস করবেন বলে জানিয়েছেন। বিশেষ করে সেখানকার উইকেটটাকে ভীষণ মিস করবেন। তিনি বলেন, ‘উইকেট অনেক ভালো থাকে। সেটা অনেক মিস করব। আমি আশা করব দুই তিন বছর পরিস্থিতি যদি ধারাবাহিকভাবে ভালো থাকে, তখন না যাওয়ার কোনো কারণ নেই। যদি বলেন বাংলাদেশের ক্রিকেটে একটা বড় সিরিজ মিস করা। একইসঙ্গে আমার কাছে সুযোগও ছিল পিএসএলে খেলা। আমি কিন্তু প্রথমেই না করে দিয়েছি। আমি জানি পুরো টুর্নামেন্ট (পিএসএল) পাকিস্তানে হবে। আমি বলেছি আমার পরিবার আমাকে যেতে অনুমতি দিচ্ছে না, কাজেই ওখানে যাওয়ার প্রশ্ন ওঠে না।’

পাকিস্তান সফরে যেতে মুশফিকুর রহিম আরও সময় নিতে চান। আগামী দুই-তিন বছর পর পরিরিস্থতি শান্ত হলে মুশফিক ঠিকই পাকিস্তান সফরে যাবেন। তবে আপাতত পাকিস্তান সফরে যাওয়ার কোনো ইচ্ছেই নেই তার।

বাংলাদেশ তিন ধাপে পাকিস্তান সফরে যাবে। জানুয়ারি থেকে এপ্রিলের এই সফরে টাইগাররা তিন টি-টোয়েন্টি, দুটি টেস্ট ও একটি ওয়ানডে খেলবে।

Print Friendly, PDF & Email