পাকিস্তানে খেলতে রাজি আয়ারল্যান্ড!

স্পোর্টস লাইফ, ডেস্কপাকিস্তান ক্রিকেটের জন্য সুখবর নিয়ে হাজির আয়ারল্যান্ড। পাকিস্তান সফরে রাজি অভিষেক টেস্টের অপেক্ষায় থাকা আয়ারল্যান্ড। শুক্রবার (১১ মে) ঘরের মাঠ ডাবলিনে পাকিস্তানের বিপক্ষেই ঐতিহাসিক টেস্ট অভিষেক হচ্ছে আইরিশদের। এ ম্যাচকে সামনে রেখে এমন কথা জানালেন আইরিশ ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান নির্বাহী ওয়ারেন ডিউট্রম।

আর সাদা পোশাকের আঙিনায় প্রথমবার পা রাখতে যাওয়া আয়ারল্যান্ডের এমন ইঙ্গিতে বেশ আত্মবিশ্বাসী হওয়ার কথা পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডেরও।

পাকিস্তানের এক সংবাদ মাধ্যমকে দেয়া সাক্ষাৎকারে ডিউট্রম বলেন, ‘ওয়েস্ট ইন্ডিজের (পাকিস্তান সফর) সাম্প্রতিক সফর বেশ ভালভাবেই শেষ হতে দেখেছি আমরা। লাহোর আর করাচিতে আয়োজিত পিএসএলের ম্যাচগুলোও ভালভাবেই শেষ হয়েছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘আইসিসি ও পাকিস্তানের সাথে নিরাপত্তার দিকটি নিয়ে আমরা কথা বলবো। কিন্তু, আমি দেখতে পাচ্ছি, অদূর ভবিষ্যতে পাকিস্তান সফর সম্ভব।’

পিসিবি’র সভাপতি নাজাম শেঠি আইরিশদের অভিষেক টেস্ট উপলক্ষে পাকিস্তান দলের সাথে ডাবলিনে অবস্থান করছেন। টেস্ট চলাকালীন সময়েই সফর নিয়ে বিস্তারিত আলোচনার সম্ভাবনা রয়েছে। তাছাড়া পাকিস্তানের পক্ষ থেকে অফিসিয়াল আমন্ত্রণ না পাওয়া পর্যন্ত কিছুই নিশ্চিত নয়।

এদিকে নাজাম শেঠি জানিয়েছেন, ডাবলিন সফরে এরকম কোন বিষয় নিয়ে আলোচনা করার সুযোগ নেই। বিষয়টা হলো আইসিসির এফটিপি’র বাইরে আগামী ১২ মাসের মধ্যে আর কোনো স্লট খালি নেই।’

চলতি বছর হোম ভেন্যু সংযুক্ত আরব আমিরাতে এশিয়া কাপ, অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ডের সাথে সিরিজ আর তারপর পাকিস্তান সুপার লিগ বা পিএসএল আয়োজন করবে পিসিবি। ফলে আইরিশদের জন্য সহসা কোনো সিরিজ আয়োজন তাদের পক্ষে সম্ভব নয়।

এদিকে চার বছর আগে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলতে পাকিস্তান সফরে যাওয়ার কথা ছিল আয়ারল্যান্ডের। কিন্তু করাচি বিমানবন্দরে সন্ত্রাসী হামলায় সেই সফর বাতিল হয়ে যায়।

২০০৯ সালে শ্রীলঙ্কার টিম বাসে সন্ত্রাসী হামলার কারণে নিরাপত্তার অজুহাতে দীর্ঘদিন পাকিস্তান সফর থেকে বিরত ছিলো সকল ক্রিকেটখেলুড়ে দেশ। সেই থেকে পাকিস্তানে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট নির্বাসনে চলে যায়। তবে নিজদের মাটিতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফেরাতে মরিয়া পিসিবি ২০১৫ সালে জিম্বাবুয়েকে ডেকে এনে প্রথম জট খুলে।

তারপর লাহোর আর করাচিতে ২০১৭ সাল থেকে পিএসএলের দুটি ফাইনাল ম্যাচ, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও বিশ্ব একাদশের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ এবং শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে একটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ আয়োজন করে পাকিস্তান।

তবে সম্প্রতি পাকিস্তানে খেলার প্রস্তাব নাকচ করে দেয় অস্ট্রেলিয়া।  নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ডকেও প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে। যদিও এখনও তাতে সায় মিলেনি। এরই মাঝে আইরিশদের স্বতঃপ্রণোদিত প্রস্তাব পিসিবির জন্য ‘মেঘ না চাইতেই বৃষ্টি’র মতো।

Print Friendly, PDF & Email