বিশ্বকাপের পরই অবসরে ধোনি!

স্পোর্টস লাইফ, ডেস্কএবারের বিশ্বকাপে ভারতের শেষ ম্যাচটিই সম্ভবত হতে চলেছে জাতীয় দলের জার্সি পরে মহেন্দ্র সিং ধোনির শেষ ম্যাচ। ভারতীয় ক্রিকেটের অন্দরে তেমন কথাই ভেসে বেড়াচ্ছে ধোনিকে ঘিরে।

এ প্রসঙ্গে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের এক কর্মকতা ভারতীয় সংবাদ মাধ্যমকে বলেন, ‘ধোনিকে চেনা মুশকিল। কিন্তু বিশ্বকাপের পরে ভারতের হয়ে তার খেলার সম্ভাবনা ক্ষীণ। যদিও তিন ধরনের ফরম্যাটে অধিনায়কত্ব ছাড়ার তাৎক্ষণিক সিদ্ধান্তের মতো এটাও এখনই নিশ্চিত করে আঁচ করা মুশকিল।’

ভারতীয় ক্রিকেটের বর্তমান নির্বাচক কমিটির মেয়াদ শেষ হচ্ছে অক্টোবরের বার্ষিক বৈঠকের পরে। তবে তার আগে সামনের বছর অস্ট্রেলিয়ায় হতে চলা টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের কথা মাথায় রেখেই দল গড়বেন তারা, একথা বলাই যায়। এরপর যারা দায়িত্বে আসবেন তাদের পক্ষেও যথেষ্ট সময় থাকবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের দল গড়ার।

এবারের বিশ্বকাপে ধোনি সাত ম্যাচে ২২৩ রান করেছেন। স্ট্রাইক রেট ৯৩। এর থেকে অবশ্য বোঝার উপায় নেই, স্ট্রাইক রোটেট করা বা বড় শট খেলতে কতটা সমস্যায় পড়তে হচ্ছে মাহিকে।

সমালোচকদের কেউ কেউ তার ব্যাটিংয়ে দায়িত্বজ্ঞানের অভাবের কথা বলছেন। কেউ বা বলছেন, ফিনিশার ধোনির দক্ষতায় মরচে পড়েছে। সৌরভ গাঙ্গুলি ও শচীন টেন্ডুলকারও ধোনির ব্যাটিং নিয়ে কথা বলছেন। এই পরিস্থিতিতে টিম ম্যানেজমেন্ট হয়তো ভালই বুঝছে, বিশ্বকাপের পরে তাদের সাবেক অধিনায়ককে আর দলে রাখা যাবে না। তবে এ বিষয় নিয়ে এখনই মুখ খুলতে রাজি নয় বিসিসিআই।

বিষয়ে সাবেক এক ভারতীয় খেলোয়াড় জানিয়েছেন, টিম ম্যানেজমেন্ট ২০১৭ সালে চ্যাম্পিয়নস ট্রফির পরে আলোচনায় বসেছিল। তখনই সিদ্ধান্ত হয় ২০১৯ বিশ্বকাপ পর্যন্ত আরও দুই বছর ধোনিকে সময় দেওয়া হবে। ভারত বর্তমানে সেমিফাইনালে পৌঁছেছে কিন্তু ধোনির তেমন ভালো পারফরম্যান্স পাওয়া যায়নি। কেউ ওকে অবসর নিতে বলবে না ঠিকই কিন্তু বিশ্বকাপের পর পরিস্থিতিটা এরকম থাকবে না।

Print Friendly, PDF & Email