রিও অলিম্পিক ভিলেজে আগুন!‌ চোর!‌

স্পোর্টস লাইফ ডেস্ক :  যত কাণ্ড এখন রিও-‌তে!‌ অলিম্পিক শুরু হতে আর দিন কয়েক বাকি। তার আগে, খুব একটা স্বস্তির পরিবেশ নেই ব্রাজিলে। কখনও শ্রমিক অসন্তোষ, কখনও স্টেডিয়াম তৈরি না হওয়া, কখনও পানীয় জলের সমস্যা‌ সব নিয়েই নানা বিতর্ক তৈরি হয়েছে এর আগে।

সেই বিতর্কের শেষ নেই এখনও। অস্ট্রেলিয়ার অলিম্পিক টিম যেমন বাধ্য হল অ্যাথলিট ভিলেজে নিজের থাকার জায়গা খালি করতে। আগুন লেগে যাওয়ায়!‌ যদিও বড়‌সড় কিছু ঘটেনি। যেখানে অস্ট্রেলীয়দের থাকার ব্যবস্থা করা হয়েছিল, হঠাৎই সেখানকার গাড়ি পার্কিংয়ের জায়গা থেকে কালো ধোঁয়া বেরতে দেখা যায়।

মুহূর্তের মধ্যে সিঁড়ি যেদিকে আছে, সেখানেও ছড়িয়ে পড়ে ওই ধোঁয়া। অ্যাথলিট ভিলেজে, এমন কাণ্ড ঘটায় আবার মুখ পুড়ল ব্রাজিলের। অস্ট্রেলিয়া দলের মুখপাত্র মাইক ট্যানক্রেড জানিয়েছেন, ‘‌আগুন লেগেছিল। তবে কারও কোনও ক্ষতি হয়নি। কেউ অসুস্থও হয়নি।’‌

উল্লেখ্য অস্ট্রেলীয়রা রিও পৌঁছেও অ্যাথলিট ভিলেজ নিয়ে আপত্তি করেছিল। জলের লাইন, বাথরুমের লাইনে ফাটল, শট শার্কিট হওয়ার সম্ভাবনা এসব নিয়ে প্রতিবাদ করেছিল। যদিও বৃহস্পতিবার রিও-‌র কর্তারা ঘোষণা করেছিলেন, জলের লাইন, পাম্পের লাইনের সমস্যা মিটে গেছে। বিদ্যুতেরও কোনও সমস্যা নেই। কিন্তু একদিনের মধ্যেই দেখা গেল ছবিটা উল্টো!‌

এদিকে অ্যাথলিটরা যখন শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতিতে ব্যস্ত, তখন তাঁদের সেই তৎপরতাকেও রীতিমতো চ্যালেঞ্জের মুখে ফেলে দিয়েছে চোরেরা!‌ তারা এখন আরও ব্যস্ত!‌ শুক্রবার রাতে মেক্সিকোর বিরুদ্ধে যখন প্রস্তুতি ম্যাচ খেলছিল আর্জেন্টিনা, সেই সময় হোটেলের ঘর থেকে চুরি গেল ফুটবলারদের টাকাপয়সা আর মূল্যবান জিনিস!‌

নিচ্ছিদ্র নিরাপত্তার বন্দোবস্ত রয়েছে, কর্তৃপক্ষ বারবার আশ্বাস দিলেও, তাতে যে ফাঁকফোকর আছে, তা চোরেদের এই কীর্তিতেই প্রমাণ!‌ চিন্তার বিষয় হল, চোরেদের এই রমরমানি অলিম্পিক চলাকালীন না জানি আরও কত বেড়ে যাবে!‌ সেই ভয়েই ব্রিটেনের অ্যাথলিটদের একটি অ্যাপ ডাউনলোড করতে বলা হয়েছে।

যদি রিও-‌তে অ্যাথলিটদের অপহরণ করার চেষ্টা করা হয় বা করা হয় কিংবা জঙ্গিরা পণবন্দী বানায়, সেক্ষেত্রে মোবাইলের এই অ্যাপের মাধ্যমে বার্তা মিলবে। অ্যাথলিটরা ওই মুহূর্তে কোথায় আছেন, তা জানা যাবে প্রযুক্তির সাহায্যেই। কোনও কারণে এই অ্যাপে বার্তা আসা বন্ধ হয়ে গেলেই বুঝতে হবে, ওই অ্যাথলিট বিপদে পড়েছেন। সব মিলিয়ে অলিম্পিক শুরুর আগে সমস্যার শেষ নেই। নেই সতর্কতা অবলম্বনের শেষও!‌ ‌‌‌

Print Friendly, PDF & Email